নতুন রিঅ্যাকশন ফিচার নিয়ে এলো ভাইবার

বুধবার, জুলাই 22 2020
ভাইবারের রিঅ্যাকশন ফিচার
unb

শীর্ষস্থানীয় মোবাইল মেসেজিং অ্যাপ্লিকেশন ভাইবার এবার তাদের গ্রাহকদের জন্য নিয়ে এলো বিশেষ রিঅ্যাকশন ফিচার। সহজে ব্যাবহারযোগ্য এই অ্যাপ্লিকেশনে সংযোজিত এই ফিচারের মাধ্যমে ইন্সট্যান্ট মেসেজিং আরো দ্রুত এবং উপভোগ্য হবে বলে জানিয়েছে ভাইবার। গ্রাহকদের মনের ভাব প্রকাশের বিভিন্ন উপায়ের মধ্যে চ্যাটিং থেকেও কার্যকরী রিঅ্যাকশন ফিচার। ফেসবুক বেশ কয়েক বছর ধরেই তাদের মেসেঞ্জার এবং অন্যান্য চ্যাটিং অ্যাপ্লিকেশনে বিভিন্ন অঙ্গভঙ্গিযুক্ত রিঅ্যাকশন ফিচার ব্যাবহার করে আসছে। তবে ভাইবার প্ল্যাটফর্মে এই প্রথম গ্রাহকদের জন্যে সৃজনশীল রিঅ্যাকশন ফিচার যুক্ত হচ্ছে। ভাইবার বলছে, যে কোনো বার্তায় প্রতিক্রিয়া বা অভিব্যক্তি প্রকাশে ব্যবহারকারীকে বার্তার পাশে থাকা হার্ট আইকনে (ভালোবাসার চিহ্ণ) একটু সময় ধরে ট্যাপ করলেই তারা তাদের পছন্দ, হাসি, রাগ ও দুঃখের বিভিন্ন অভিব্যক্তি প্রকাশ করতে পারবেন। বিভিন্ন বার্তার জবাবে এই রিঅ্যাকশন ফিচার গ্রাহকদের জন্য বেশ সহায়ক হবে বলেও জানিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি।

জাপানী প্রতিষ্ঠান রাকুতেনের তৈরী যোগাযোগ মাধ্যম ভাইবারের চিফ অপারেটিং অফিসার অফির ইয়াল এর মতে, ব্যবহারকারীরা যাতে যথাযথভাবে তাদের ভাব প্রকাশ করতে পারে তা নিশ্চিত করতে ভাইবার প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। হার্ট চিহ্নের মাধ্যমে কোনো একটি বার্তাকে ‘লাইক’ দেয়ার বিষয়টি বার্তা পড়ার সময় মানুষের মাঝে বিস্তৃত পরিসরের যে অনুভূতি কাজ করে তা সম্পূণরূপে প্রকাশ করে না। মেসেজ রিঅ্যাকশন ফিচারটি যেকোনো বার্তায় ব্যবহারকারীদের কার্যকরী উপায়ে যথাযথ প্রতিক্রিয়া প্রকাশে সহায়তা করবে বলেও জানান তিনি। বিশ্লেষকদের মতে, সামাজিক যোগাযোগের মত একটি দ্বিমুখী অথবা বহুর্মূখী বিষয়ে একজন ব্যাবহারকারীর বার্তায় তার বন্ধুদের প্রতিক্রিয়া ব্যাবহারকারীর জন্যে বেশ গুরুত্বপূর্ণ। উল্লেখ্য, ইতিমধ্যে ফেসবুকে এ ধরনের রিঅ্যাকশন ফিচার বেশ জনপ্রিয়। ভাইবারেও এ ধরনের সৃজনশীল ফিচারের অন্তর্ভূক্তিতে গ্রাহকরা সন্তোষ প্রকাশ করেছেন।
share on